ইউটিউব চ্যানেল মনিটাইজেশন আবেদন করার নিয়ম। (মোবাইল দিয়ে)

 

আমাদের অনেকেরই ইউটিউব এর একটি চ্যানেল থাকে, অনেকেই চাই এই চ্যানেলের মাধ্যমে বিভিন্ন কন্টেন্ট ক্রিয়েট করে বাড়তি ইনকাম করার 

যদি আমরা ইউটিউব একাউন্ট খুলতে না জানি তাহলে আমাদের অন্য একটি আর্টিকেল যা ইউটিউব চ্যানেল খোলার ওপরে করা হয়েছে সেটি দেখে নিতে পারেন  – এখানে  CLICK করুন

ইউটিউব থেকে ইনকাম করা খুবই সহজ কিন্তু সঠিক উপায় না জানায় তা আর হয়ে ওঠে না ইউটিউব এর থেকে এডসেন্সের মাধ্যমে মূলত ইনকাম হয় সেই এডসেন্স একাউন্ট এর জন্য এপ্লাই করতে হলে কিছু ট্রাম এন্ড কন্ডিশন পূরণ করতেই হবে প্রথমত ইউটিউব ৪০০০ ঘন্টা ওয়াচ টাইম দ্বিতীয়তঃ ১০০০ সাবস্ক্রাইবারউপরোক্ত শর্তগুলো পূরণ করতে পারলে এপ্লাই করা যাবে এখন এপ্লাই করার ক্ষেত্রে কিছু নিয়ম আছে সেগুলো হলো,

ইউটিউব চ্যানেল মনিটাইজেশন আবেদন করার নিয়ম। (মোবাইল দিয়ে)

ইউটিউব চ্যানেল মনিটাইজেশন আবেদন করার নিয়ম। (মোবাইল দিয়ে)

প্রথমে যেকোনো একটি ব্রাউজার সিলেক্ট করতে হবে। ব্রাউজারের গিয়ে ডেক্সটপ মোড অন করে দিতে হবে

দ্বিতীয়তে আপনার ইউটিউব চ্যানেলের ঢুকতে হবে। সেখান থেকে ডান কর্নার একটি করলে ইউটিউব স্টুডিও অপশনটি দেখা যাবে ইউটিউব স্টুডিও ওপেন হলে বামে ড্যাশবোর্ডে নিচে মনিটাইজেশন অপশন টি পাবে এখন এপ্লাই নাও এ ক্লিক করলে একটি পেজে নিয়ে যাবে সেখানে মনিটাইজেশন এর উদ্দেশ্যে 3 টি স্টেপ ফলো করতে বলবে যা আপনাকে অতি গুরুত্ব সহকারে পড়ে পূরণ করতে হবে স্টেপ গুলো হল,

. ইউটিউবে ট্রাম এন্ড কন্ডিশন একসেপ্ট করতে হবে।

. দ্বিতীয় স্টেপ গুগল এডসেন্স এর জন্য সাইন আপ করতে হবে যদি আপনার প্রথমেই এডসেন্স একাউন্ট থাকে তাহলে ফাস্ট অপশনে ক্লিক করতে হবে, কিন্তু যদি এডসেন্স একাউন্ট না থাকে তাহলে দ্বিতীয় অপশন টি ক্লিক করতে হবে এরপরে continue-তে ক্লিক করতে হবে যা আপনাকে আপনার জিমেইল একাউন্টে দিতে বলবে, জিমেইল অ্যাকাউন্ট ভালোভাবে দেওয়ার পর আপনাকে আপনার নিজ কান্ট্রি সিলেক্ট করতে হবে, তারপর আবার ট্রানসেন্ড কন্ডিশনে একসেপ্ট করতে হবে এক্সেপ্ট করার পর গেট স্টার্টেড নামে একটি অপশন আসবে সেখানে ক্লিক করতে হবেএখন এটি আপনাকে আপনার এডসেন্স একাউন্টে নিয়ে যাবে

. এই পেজটির ইনফরমেশন গুলো সঠিক এবং নির্ভুল ভাবে দিতেই হবে প্রথমত আপনাকে আপনার একাউন্ট টাইপ কি সেট করতে হবে অবশ্যই আপনি ইন্ডিভিজুয়াল অপশনটি দিবেন এরপরে আপনার ভোটার আইডি কার্ডের নাম, আপনার বর্তমান ঠিকানা চাইলে সেকেন্ড ঠিকানা হিসাবে আপনার পরিচিত কোন মোবাইল নাম্বার ও দিতে পারেন এরপর আপনার সিটি সিলেক্ট করতে হবে এখন পোস্টাল কোড চাইবে, অর্থাৎ আপনার নিজ এলাকার পোস্ট অফিস নাম্বার সঠিক ভাবে দিতে হবে

এখন সাবমিট এ ক্লিক করতে হবে, এবং রিডিরেক্ট অপশনটি ক্লিক করবেন যা আপনাকে কিছুসময়ের মধ্যেই আপনার ইউটিউব স্টুডিও তে নিয়ে যাবে

তৃতীয়তে যেটি থাকবে তা হল গেট রিভিউড, অর্থাৎ ইউটিউব আপনার একাউন্টি এডসেন্স এর জন্য চয়েস করেছে কিনা বর্তমানে এটি নট স্টার্টেড লেখা থাকবে কিন্তু দু-তিন দিনের মধ্যে কিংবা অল্প কিছু সময়ের মধ্যেই যদি আপনাকে ইউটিউব এডসেন্স দেওয়ার অনুমতি দেয় তাহলে স্টেপ 3 এর পাশে ইন প্রগ্রেস লেখা উঠবে

এখন আপনাকে সাবমিট করে দিতে হবে এইতো এই সহজ উপায়গুলো ভালোভাবে ফলো করলেই আপনিও পারবেন অন্যান্য ভাল কনটেন্ট রাইটার দের মত লক্ষ লক্ষ টাকা ইউটিউব থেকে ইনকাম করতে

আমাদের অন্য একটি আর্টিকেল যা ইউটিউব চ্যানেল খোলা নিয়ে করা রয়েছে তা দেখেও আপনারা ইউটিউব চ্যানেলটি খুলতে পারেন Click here

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back To Top
x